দিনাজপুর বার্তা ২৪ | Dinajpur Barta 24

ত্রাণ সহায়তা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী দেশের খাদ্যাভাব দূর করেছেন–নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী
মোফাচ্ছিলুল মাজেদ মে ২৯, ২০২০, ৪:০১ অপরাহ্ণ | পড়া হয়েছে ৮৪ বার |

দিনাজপুর প্রতিনিধি : 
নৌপরিবহন প্রতিমন্ত্রী খালিদ মাহমুদ চৌধুরী এম পি বলেছেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা একটি অনুভূতির নাম।  প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হৃদয় দিয়ে দেশের মানুষকে অনুভব করেন। বঙ্গবন্ধুর পরে বাংলাদেশের মানুষ এমন আপন নেতৃত্ব আর পায়নি। তিনি বাংলাদেশকে পুনরায় বিশ্ব আসনে সমাদৃত করেছেন।
প্রতিমন্ত্রী আজ দিনাজপুরের বোচাগঞ্জে মৌসুমী ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ বিভিন্ন এলাকা পরির্দশনের সময় এসব কথা বলনে। এসময় তিনি ক্ষতিগ্রস্থ পরিবারের মাঝে আর্থিক অনুদান প্রদান করেন ।
ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থদের সাহস দিয়ে প্রতিমন্ত্রী বলনে, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার আপনাদের সাথে আছে। তিনি হৃদয় দিয়ে আপনাদের দুঃখ অনুভব করনে। তিনি বাংলাদেশকে অনুভব করেন। করোনা পরস্থিতিরি কথা উল্লেখ করে তিনি বলেন, প্রধানমন্ত্রী কওমী মাদ্রাসার জন্য অনুদান দিয়েছেন, প্রতি মসজিদে ইমামদের জন্য অনুদান দিয়েছেন।খেঁটে খাওয়া, অসহায় দিনমজুরদের মোবাইলের মাধ্যমে অনুদান দিয়েছেন।


খালিদ মাহমুদ চৌধুরী বলেন, মানুষকে অনুভব করেন বলেই গত দুই মাসেরও বেশি সময় ধরে ত্রাণ সহায়তা দিয়ে প্রধানমন্ত্রী দেশের খাদ্যাভাব দূর করেছেন। দেশে এখন কোন অনাহারের কষ্ট নেই। তিনি বলেন, শেখ হাসিনা নেতৃত্ব দিচ্ছে বলেই বাংলাদেশের জনগণ শান্তিতে আছে। সীমাবদ্ধতার মধ্যেও করোনা সংক্রমণ তিনি নিয়ন্ত্রণে রেখেছেন। এ কারণে দেশের পরিস্থিতি উদ্বেগজনক নয়।
প্রতিমন্ত্রী উপজেলার ইশানিয়া ও নাফানগর ইউনিয়নের ঘূর্ণিঝড়ে ক্ষতিগ্রস্থ এলাকা পরিদর্শন করেন। ক্ষতিগ্রস্থ শালবাগান ইউনিয়নও তিনি দেখতে যান। ক্ষতিগ্রস্থ ধর্মীয় প্রতিষ্ঠানে আর্থিক সহায়তা প্রদান করেন। ক্ষতিগ্রস্থ প্রতি পরিবারকে নগদ পাঁচ হাজার টাকা করে অনুদান প্রদান করেন।
এসময় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ফখরুল হাসান, উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আফছার আলী, পৌর মেয়র আব্দুস সবুর, আওয়ামী লীগ নেতা তৈমুর ইসলাম, শাহীনুর ইসলামসহ স্থানীয় আওয়ামী লীগ ও অঙ্গ-সহযোগী সংগঠনের নেতারা উপস্থিত ছিলেন।

এই পাতার আরো খবর -
১২ই জুলাই, ২০২০ খ্রিস্টাব্দ
দিনাজপুর, বাংলাদেশ
ওয়াক্তসময়
সুবহে সাদিকভোর ৩:৫৪ পূর্বাহ্ণ
সূর্যোদয়ভোর ৫:২৩ পূর্বাহ্ণ
যোহরদুপুর ১২:১১ অপরাহ্ণ
আছরবিকাল ৪:৫৫ অপরাহ্ণ
মাগরিবসন্ধ্যা ৭:০০ অপরাহ্ণ
এশা রাত ৮:২৮ অপরাহ্ণ
সম্পাদকীয়